ভারী বর্ষণ ও বজ্রপাতে বন্যার সৃষ্টি হয়েছে সৌদি আরবে। ফলে সড়কে থাকা গাড়িগুলো ভেসে যাচ্ছে। এরইমধ্যে বন্যা কবলিত এলাকায় স্কুল-কলেজ বন্ধ করা হয়েছে। একইসঙ্গে জেদ্দা, রাবিগ ও খুলাইসে প্রাইভেট ও আন্তর্জাতিক স্কুলগুলোকে বন্ধ করা হয়েছে। সৌদি আরবের জাতীয় আবহাওয়া সেন্টারের বজ্রপাতের পূর্বাভাস অনুযায়ী এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। খবর খালিজ টাইমসের

আরব নিউজের প্রতিবেদন অনুযায়ী, বন্যার কারণে সৌদি আরবের দু’টি বিশ্ববিদ্যালয়-কিং আব্দুল আজিজ বিশ্ববিদ্যালয় এবং ইউনিভার্সিটি অব জেদ্দার প্রথম সেমিস্টারের চূড়ান্ত পরীক্ষা বাতিল করা হয়েছে। পরবর্তী সময়ে পরীক্ষার তারিখ জানানো হবে। সৌদির বেসামরিক প্রতিরক্ষা বিভাগ তীব্র আবহাওয়ার পরিস্থিতি নিয়ে একটি বিবৃতি প্রকাশ করেছে। এতে হালাক থেকে মাঝারি ‍বৃষ্টি এবং শক্তিশালী ঝড়ের আশঙ্কা করা হচ্ছে। 

এদিকে, বাসিন্দাদের প্রয়োজনীয় নিরাপদ নির্দেশনা এবং আটকেপড়া পানি থেকে সাবধান থাকতে বলেছে সৌদি কর্তৃপক্ষ। মৌসুমি জলবায়ুর কারণে আসন্ন বিমানের ফ্লাইটগুলো আসতে দেরি করছে। জেদ্দা বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ তাদের ওয়েবসাইটে গালফ এয়ার, টার্কিশ এয়ারলাইন্স ও সৌদিয়া বিমানের পৌঁছার সময় পিছিয়ে দিয়েছে। 

বিডি-প্রতিদিন/শফিক



Contact
reader@banginews.com

Bangi News app আপনাকে দিবে এক অভাবনীয় অভিজ্ঞতা যা আপনি কাগজের সংবাদপত্রে পাবেন না। আপনি শুধু খবর পড়বেন তাই নয়, আপনি পঞ্চ ইন্দ্রিয় দিয়ে উপভোগও করবেন। বিশ্বাস না হলে আজই ডাউনলোড করুন। এটি সম্পূর্ণ ফ্রি।

Follow @banginews