২০ লাখ টাকার পরিবর্তে এসএমই খাতে লেনদেনে সর্বনিম্ন বিনিয়োগ সীমা ৩০ লাখ টাকা করে আদেশ জারি করেছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা। গতকাল বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম এ আদেশ জারি করেন। এতে কোয়ালিফাইড ইনভেস্টরদের বিনিয়োগের সর্বনিম্ন সীমা ৩০ লাখ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।
আদেশে বলা হয়েছে, এসএমইতে লেনদেনে যোগ্য হতে ৩০ লাখ টাকা বিনিয়োগ করতে হবে। এখন যেসব যোগ্য বিনিয়োগকারীদের বিনিয়োগ ২০ লাখ টাকা তাদের আগামী ৩ মাসের মধ্যে ৩০ লাখ টাকায় উন্নীত করতে হবে।
বিনিয়োগকারীদের ৩০ লাখ টাকা বিনিয়োগের ভিত্তিতে প্রতি প্রান্তিকে এসএমইতে লেনদেন যোগ্য করতে স্বয়ংক্রিয়ভাবে বিনা খরচে রেজিস্ট্রেশন করা হবে। এজন্য প্রতি প্রান্তিকে সিডিবিএল বা ডিপি বিনিয়োগকারীর বিস্তারিত তথ্য স্টক এক্সচেঞ্জে জমা দেবে।
এরই মধ্যে যারা ২০ লাখ টাকা বিনিয়োগ দিয়ে কোয়ালিফাইড ইনভেস্টর হয়ে এসএমই কোম্পানির শেয়ার ধারণ করছেন তারা যদি ৩০ লাখ টাকার শর্ত পূরণ না করেন, তাহলে তারা এসএমইর শেয়ার শুধুমাত্র বিক্রি করতে পারবেন, কিনতে পারবেন না।
এর আগে গত ১৭ ফেব্রুয়ারি এসএমই মার্কেটে বিনিয়োগকারীদের অংশগ্রহণ বাড়াতে কোয়ালিফাইড ইনভেস্টর হওয়ার জন্য পুঁজিবাজারে ৫০ লাখ টাকা থেকে কমিয়ে ২০ লাখ টাকা করে বিএসইসি।



Contact
reader@banginews.com

Bangi News app আপনাকে দিবে এক অভাবনীয় অভিজ্ঞতা যা আপনি কাগজের সংবাদপত্রে পাবেন না। আপনি শুধু খবর পড়বেন তাই নয়, আপনি পঞ্চ ইন্দ্রিয় দিয়ে উপভোগও করবেন। বিশ্বাস না হলে আজই ডাউনলোড করুন। এটি সম্পূর্ণ ফ্রি।

Follow @banginews