গত তিন মাসের ব্যবধানে দুইটি 737 ম্যাক্স বিমান বিধ্বস্তের রেশ এখনো কাটিয়ে উঠতে পারেনি বোয়িং। আর এরই মাঝে তাদের তৈরি আরেকটি বিমান বিধ্বস্তের খবর দিলো ইন্দোনেশিয়া। স্থানীয় সময় শনিবার, বিমান নিখোঁজ বার্তার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই মার্কিন পুঁজিবাজারে কমে বোয়িংয়ের শেয়ারদর। এছাড়া দেখা দিয়েছে, বিশ্বব্যাপী তাদের বাজার ছোট হওয়ার শঙ্কাও।

সঙ্কট যেন তাদের পিছু ছাড়ছে না। 737 ম্যাক্স নিয়ে প্রায় দুই বছর ধরে চলা বিতর্ক যখন অবসানের পথে, ঠিক তখনই দুর্ঘটনায় পড়লো আরেকটি বিমান। যদিও এবারেরটা ২০ বছরের পুরোনো।

যাত্রী, ক্রুসহ ৬২ আরোহী নিয়ে ইন্দোনেশিয়ার জাকার্তা থেকে উড্ডয়নের কয়েক মিনিটের মাথায় কন্ট্রোল রুমের সাথে 737-500 বিমানের সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়। আর এর প্রায় ১৮ ঘণ্টা পর ওই বিমানের সম্ভাব্য অবস্থান শনাক্ত করা হয়। ফ্লাইট রেকর্ডার থেকে পাওয়া সংকেত এবং স্থানীয় জেলেদের তথ্যের ভিত্তিতে, বিমানবন্দরের ২৪ কিলোমিটার উত্তরে লাকি দ্বীপের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয় বিমানটির ধ্বংসাবশেষ।

এদিকে, এখনো জানা যায়নি দুর্ঘটনার কারণে। তবে নতুন করে শঙ্কা দেখা দিয়েছে, প্রতিষ্ঠানটির ভবিষ্যৎ বাণিজ্য নিয়ে। কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই মার্কিন পুঁজিবাজারে প্রায় দেড় শতাংশ কমেছে বোয়িংয়ের শেয়ারদর। আর এই ঘটনার পর নতুন করে পরীক্ষা-নিরীক্ষার আওতায় আসতে পারে, বিভিন্ন দেশে থাকা বোয়িংয়ের সব বিমান।

গত কয়েক বছরের মধ্যে বোয়িংয়ের একাধিক বিমান বিধ্বস্তের ঘটনা ঘটেছে। বোয়িং 737 ম্যক্স বিমান উড্ডয়নের অনুমতির পরই তাদের আরেকটি বিমান দুর্ঘটনা কবলিত হলো। কোনো ত্রুটি না থাকলে এই ধরনের ঘটনা ঘটতো না।

এ দুর্ঘটনা নিয়ে ইন্দোনেশিয়া ও বোয়িং এখন পর্যন্ত কোনো আনুষ্ঠানিক বিবৃতি দেয়নি। উল্লেখ্য, ২০১৮ ও ২০১৯ সালে 737 ম্যাক্স দুর্ঘটনায় নিহতের পরিবারকে ৫০ কোটি ডলার ক্ষতিপূরণ দিতে রাজি হয়েছে বোয়িং। একইসঙ্গে তথ্য গোপণ ও প্রতারণার অভিযোগে দিতে হয়েছে আরো ২শ কোটি।



Contact
reader@banginews.com

Bangi News app আপনাকে দিবে এক অভাবনীয় অভিজ্ঞতা যা আপনি কাগজের সংবাদপত্রে পাবেন না। আপনি শুধু খবর পড়বেন তাই নয়, আপনি পঞ্চ ইন্দ্রিয় দিয়ে উপভোগও করবেন। বিশ্বাস না হলে আজই ডাউনলোড করুন। এটি সম্পূর্ণ ফ্রি।

Follow @banginews